চাঁপাইনবাবগঞ্জ সীমান্তের ওপারে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশি আহত

চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলার জোহরপুর-টেক সীমান্তের ওপারে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফের গুলিতে মোহাম্মদ ফটিক (৩০) নামে এক বাংলাদেশি গরুর রাখাল গুরুতর আহত হয়েছেন। গুলিবিদ্ধ আশঙ্কাজনক অবস্থায় বাংলাদেশের অভ্যন্তরে পালিয়ে এলে তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানান স্থানীয়রা।
ফটিকের ভাই শহিদুল ইসলাম ফিটু ও রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, জেলার সদর উপজেলার সুন্দরপুর বাগডাঙ্গা এলাকার আব্দুল লতিফের ছেলে ফটিক সহ আরো কয়েকজন তিনদিন আগে ভারতে গরু আনতে যায়। তারা বুধবার ভারত থেকে বাংলাদেশে গরু নিয়ে বাড়ি ফেরার সময় রাত ১১টার দিকে ভারতের পিরোজপুর বিএসএফ ক্যাম্পের জওয়ানরা কুতুবপুর বাওড়া ঘাট এলাকায় তাদের লক্ষ্য করে গুলি চালালে গুলিবিদ্ধ হন ফটিক। এ সময় তার সাথীরা গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ফটিককে বাড়িতে নিয়ে এসে গোপনে চিকিৎসা দেবার চেষ্টা চালান। পরে অবস্থার আরো অবনতি হলে বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসাপাতালে ভর্তি করা হয়।
এদিকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির এএসআই রফিকুল ইসলাম জানান, চাঁপাইনবাবগঞ্জ সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে গুরুতর আহত ফটিককে হাসপাতালের ৫ নম্বর ওর্য়াডে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।
এ বিষয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জ ৫৩ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের উপ-অধিনায়ক মেজর মো. এখলাসুর রহমান জানান, সীমান্তের ওপারে গুলিতে একজনের আহত হওয়ার বিষয়টি আমরা শুনেছি। তবে তার পরিবারের কেউ এ বিষয়ে কোন অভিযোগ করেনি। আর বিষয়টি জানতে চেয়ে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফের সঙ্গে যোগাযোগের জন্য চেষ্টা করা হলেও তারা এতে সাড়া দেয়নি।