সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব ছড়ালেই কঠোর ব্যবস্থা:আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব ছড়িয়ে বিশৃঙ্খলা বা অরাজকতা সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। তিনি আরো বলেন, ‘গুজব দিয়াশলাইয়ের আগুনের মতো ভয়ঙ্কর।’

যেকোনো তথ্য যাচাই-বাছাই করে ইন্টারনেট কিংবা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আপলোড বা শেয়ার করার আহ্বান জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর কারওয়ান বাজারে র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে ‘মিথ্যা রুখো, সত্য জানো’ স্লোগানে গুজববিরোধী একটি জনসচেতনতামূলক বিজ্ঞাপনের (টিভিসি) উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন,‘গুজব দিয়াশলাইয়ের আগুনের মতো ভয়ঙ্কর। একটা দিয়াশলাইয়ের আগুন যেভাবে সবকিছু মুহূর্তে ধ্বংস করে দিতে পারে, তেমনি গুজবও ভয়ঙ্কর। একটা বিভ্রান্তিকর তথ্য কিংবা গুজব মুহূর্তেই বিশৃঙ্খলতায় রূপ দেয়।’

আসাদুজ্জামান খাঁন বলেন, ‘আমরা রামুর কথা ভুলিনি, নাসিরনগরের কথাও ভুলিনি। সম্প্রতি আমাদের ছোটছোট কোমলতি শিশুরা যে অধিকার নিয়ে রাস্তায় নেমেছিল এবং সেটিও গুজবের মাধ্যমে বিভ্রান্ত করা হয়েছে। দেশজুড়ে একটা বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি সৃষ্টি করতে চেয়েছিল কতিপয় স্বার্থান্বেষী মহল।’

মন্ত্রী আরো বলেন, ‘দেশে যখন কোনো বিশৃঙ্খলতার বিপর্যয় এসে যায় তখনি র‍্যাব সেটি মোকাবিলায় নেমে যায়। আপনারা দেখেছেন দেশে জলদস্যু, জঙ্গিবাদ, মাদক নিয়ন্ত্রণ সবই র‍্যাব সফলভাবে প্রতিরোধ করেছে। আজকে তারই ধারাবাহিকতায় র‍্যাব এখন গুজববিরোধী কাজে সচেষ্ট হচ্ছে।’