আন্তর্জাতিক

ইসরাইলি বিমান হামলার জবাব দেবে হিজবুল্লাহ

ইসরাইলি বিমান হামলার সমুচিত জবাব দেওয়ার অঙ্গীকার করেছেন লেবাননের সশস্ত্র রাজনৈতিক সংগঠন হিজবুল্লাহর প্রধান হাসান নাসরুল্লাহ। শনিবার টেলিভিশনে দেওয়া এক ভাষণে এ কথা বলেন তিনি। কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল-জাজিরা এ খবর জানিয়েছে।

২০১৪ সালের পর গত বৃহস্পতিবার লেবাননে প্রথম বিমান হামলা চালায় ইসরাইল। এর জবাবে পরদিন ইসরাইলে রকেট হামলা চালায় হিজবুল্লাহ। একই দিনে লেবাননে গোলা ছোড়ে ইসরাইলি সেনাবাহিনী। এই পাল্টাপাল্টি হামলাকে ‘খুবই বিপজ্জনক’ বলে উল্লেখ করেছে জাতিসংঘ।
গত সপ্তাহের ইসরাইলি হামলা ‘খুবই ভয়ংকর পরিস্থিতি’ ডেকে এনেছে বলে উল্লেখ করেন হিজবুল্লাহ প্রধান। তবে তার সংগঠন যুদ্ধ চায় না বলেও তিনি উল্লেখ করেছেন। তবে প্রয়োজন হলে তারা যুদ্ধের জন্য প্রস্তুত বলেও সতর্ক করে দেন হাসান নাসরুল্লাহ।
২০০৬ সালের ১৪ আগস্ট ইসরাইল ও লেবাননের মধ্যে চলা টানা ৩৩ দিনের যুদ্ধের সমাপ্তি হয়। যুদ্ধ সমাপ্তির বর্ষপূর্তির প্রাক্কালে টেলিভিশনে ভাষণ দেন হাসান নাসরুল্লাহ। সেখানে তিনি বলেন, ‘আমরা শত্রুদের বলে দিতে চাই, লেবাননে ইসরাইলি বিমানবাহিনীর যে কোনো হামলার জবাব অবশ্যই দেওয়া হবে। আর সেই জবাব হবে জুতসই ও সমানুপাতিক। কারণ, আমরা আমাদের দেশ রক্ষায় নিবেদিত।’

উল্লেখ্য, ২০০৬ সালে টানা ৩৩ দিনের যুদ্ধে লেবাননের এক হাজার ২০০ মানুষ নিহত হন। তাদের বেশিরভাগই ছিল বেসামরিক লোকজন। অন্যদিকে, ইসরাইলি পক্ষে নিহত হন ১৬০ জন। পরে জাতিসংঘের মধ্যস্থতায় ওই বছরের ১৪ আগস্ট যুদ্ধবিরতি হয়।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button