আন্তর্জাতিক

টেক্সাসে করোনা আক্রান্ত সন্তানকে গাড়ির ট্রাঙ্কে আটকে রাখায় শিক্ষিকা গ্রেপ্তার

নিউ ইয়র্ক: যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে করোনা আক্রান্ত সন্তানকে নিজ গাড়ির ট্রাঙ্কে আটকে রাখার অভিযোগে পুলিশ হয়েছেন এক স্কুল শিক্ষিকাকে গ্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তারকৃত ওই নারীর নাম সারাহ বিম। ৪১ বছর বয়সী ওই নারী পেশায় শিক্ষক। মার্কিন সংবাদমাধ্যম বাংলা প্রেস এ খবর জানিয়েছে।
টেক্সাসের হ্যারিস কাউন্টিতে গত ৩ জানুয়ারি একজন প্রত্যক্ষদর্শী পুলিশকে ঘটনাটি জানায়। পরে পুলিশ গিয়ে ১৩ বছর বয়সী কিশোরকে গাড়ির ট্রাঙ্ক  থেকে উদ্ধার করে।
অভিযুক্ত বিম জানান, আক্রান্তের খবর নিশ্চিত হওয়ার জন্য ছেলেকে গাড়ির ট্রাঙ্কের ভেতরে করে প্রিজোন স্টেডিয়ামে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল করোনা পরীক্ষা করানোর জন্য। নিজেকে করোনা থেকে বাঁচাতে ওই কিশোরকে ট্রাঙ্কের ভেতর আটকে রাখেন বলে জানান সারাহ। একজন স্বাস্থ্যকর্মী সারাহ বিমকে জানান, ছেলেটিকে গাড়ির পেছনের সিটে বসতে না দেওয়া পর্যন্ত তার কোনো করোনাভাইরাস পরীক্ষা হবে না। বিম ২০১১ সাল থেকে সাইপ্রেস ফলস হাই স্কুলে শিক্ষকতা করছেন। তবে বর্তমানে তিনি ছুটিতে রয়েছেন।
এ নিয়ে সাইপ্রেস ফেয়ারব্যাংসক আইএসডি পুলিশ বিভাগের পক্ষ থেকে বলা হয়, পুলিশ এ ঘটনার তদন্ত করছে। শিশুটির তেমন ক্ষতি হয়নি। টেক্সাসের জননিরাপত্তা বিভাগের কর্মকর্তা সার্জেন্ট রিচার্ড স্ট্যান্ডিফার বলেন, ‘আমি কখনো এমনভাবে সন্তানকে ডিকির ভেতরে আটকে রাখার কথা শুনিনি। ওই গাড়ি দুর্ঘটনায় পড়লে শিশুটি গুরুতর আঘাত পেতে পারত।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button