বরিশাল বিভাগসারাদেশ

কলাপাড়ায় অবৈধভাবে ঘাট তৈরি করে টোল আদায়

কলাপাড়া(পটুয়াখালী)প্রতিনিধি।। পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় অবৈধ ভাবে খেয়াঘাট তৈরী করে টোল আদায় করছে একটি প্রভাবশালী মহল। অবৈধ এ টোল আদায়ের বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাহী
কর্মকর্তার কাছে স্থানীয় জাহিদুল ইসলাম একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। এরপ্রেক্ষিতে ধানখালী ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা মো. হামিদুল হক বাচ্চুকে সরেজমিন তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করতে বলেন উপজেলা প্রশাসন। এঘটনার সত্যতা যাছাইয়ের পর ৪০৭ নাম্বার স্মারকে একটি সরেজমিন তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেছেন ওই ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা। তবে অভিযুক্ত ব্যাক্তিরা তাদের নিজস্ব জমির ভাড়া হিসেবে জনসাধারণের কাছ থেকে অর্থ আদায় করছেন বলে জানান।
দাখিলকৃত প্রতিবেদনের মাধ্যমে জানা যায়, সরকারী ইজারাকৃত উত্তর লালুয়া-মধুপাড়া নামক খেয়াঘাট দিয়ে পণ্য পারাপার না করে নিকটবর্তী ধোলাই বাজার নামক স্থানে নিজেদের তৈরী খেঁয়াঘাট দিয়ে মালামাল পারাপার করা হয়। সরকারি রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে অবৈধ এই খেয়াঘাট পরিচালনা করছেন এলাকার প্রভাবশালী আতাহার তালুকদার ও বাদল হাওলাদারসহ বেশ কয়েকজন। এভাবে অবৈধ ঘাট তৈরী করে টোল আদায়ের ফলে ভবিষ্যতে সরকারের নিকট থেকে কেউ উত্তর লালুয়া-মধুপাড়ার খেয়াঘাট ইজারা নিতে কেউ আগ্রহী হবেন না। ফলে সরকার তার নির্দিষ্ট রাজস্ব থেকে বঞ্চিত হবে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।
অভিযুক্ত আতাহার তালুকদার বলেন, আমার রেকর্ডীয় জমিতে ঘাট তৈরি করে মালামাল পারাপারা করি। সরকারি ভাবে কোন অনুমতি নেয়নি। পায়রা বন্দর কৃর্তপক্ষের কাছে মালামাল পারাপারের জন্য লিখিত দরখাস্ত দিয়েছি।
এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহিদুল হক বলেন, আমি তদন্ত প্রতিবেদন পেয়েছি। শীঘ্রই আইনগত পদক্ষেপ নেয়া হবে।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button