রংপুর বিভাগসারাদেশ

ঘোড়াঘাটে কন্যা শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে পিতা কারাগারে

ঘোড়াঘাট (দিনাজপুর) : দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে এক কন্যা(১০) শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে আপন পিতার বিরুদ্ধে। গত ১৪ মার্চ দুপুরে সিংড়া ইউপির শিধলগ্রাম-পশ্চিমপাড়ার ঘটনাটি ঘটে।

এ ঘটনায় শিশুটির নানী বিলকিস বেগম (৫৭) বাদী হয়ে ১৯ মার্চ ঘোড়াঘাট থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা করে। পরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে শিশুটির পিতা আব্দুল হাকিমকে (৩৭) গ্রেফতার করে। পিতা আব্দুল হাকিম আফজাল হোসেনের ছেলে ।

মামলার বাদী ও শিশুটির নানী বিলকিছ বেগম জানান, ১৫ বছর আগে তার আপন ভাইয়ের ছেলের সাথে তার মেয়ের বিয়ে হয় এবং তাদের ঘরে একটি কন্যা সন্তান জন্ম নেয়। বিয়ের প্রায় ৬ বছর পর তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। সেই থেকে কন্যা সন্তানটি তার কাছে লালিত পালিত হচ্ছে। তার এবং তার ভাইয়ের বাড়ি পাশাপাশি। পারিবারিক ভাবে সিদ্ধান্ত নিতে না পারায়, মামলা করতে দেরি হয়েছে।

তিনি আরো জানান, গত ১৪ মার্চ দুপুরে তার নাতনী বারান্দায় বসে লেখাপড়া করছিল। বাড়িতে কেও না থাকার সুযোগকে কাজে লাগিয়ে গ্রেফতার হওয়া হাকিম পেছন থেকে তার কন্যা শিশুকে জড়িয়ে ধরে হাস-মুরগী রাখার ঘরে নিয়ে যায়। সেখানে ধর্ষণের চেষ্টা করলে, শিশুটি কান্নাকাটি শুরু করে। পরে প্রতিবেশীরা এসে শিশুটি উদ্ধার করে এবং হাকিম পালিয়ে যায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ঘোড়াঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু হাসান কবির বলেন, শিশুটির নানী শনিবার মামলা করেছে। আমরা তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত পিতাকে গ্রেফতার করেছি এবং গতকাল সন্ধায় তাকে দিনাজপুরের কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button