রাজশাহী বিভাগসারাদেশ

বগুড়ার তিন হাসপাতালে করোনায় ৭ ও উপসর্গে ৯ জনের মৃত্যু

বগুড়ায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে এবং উপসর্গ নিয়ে আরও ১৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে করোনায় ৭ জন এবং উপসর্গে ৯ জন মারা গেছেন। জেলার তিন হাসপাতালে শনিবার সকাল ৮টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টায় তাদের মৃত্যু হয়। করোনায় মারা যাওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে বগুড়ার ৪জন হলেন- সারিয়াকান্দির রহিমা(৬০), সদরের তৌহিদা খানম(৭০), সদরের বিউটি বেগম(৪৫) এবং সোনাতলার জহুরুল ইসলাম(৭৯)।

এছাড়া বগুড়ার বাইরের জেলার তিনজন বাসিন্দা চিকিৎসাধীন অবস্থায় করোনায় মারা গেছেন। তবে বাইরের জেলার মৃত্যুর সংখ্যা যোগ না হওয়ায় মোট মৃত্যুর সংখ্যা বগুড়ার নতুন ৪জনসহ ৫৭২জনে দাঁড়িয়েছে।

বগুড়ার ডেপুটি সিভিল সার্জন ডাঃ মোস্তাফিজুর রহমান তুহিন রোববার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে অনলাইন ব্রিফিংয়ে জেলার করোনা পরিস্থিতি সম্পর্কে ব্রিফিংয়ে এ সব তথ্য জানান।

তিনি জানান, এ ছাড়া বগুড়ায় আবারও সংক্রমণ কমেছে। সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় জেলায় ৫৭৭ নমুনায় নতুন করে আরও ১৩৭জন শনাক্ত হয়েছেন। আক্রান্তের হার ২৩ দশমিক ৭৪ শতাংশ। এর মধ্যে শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ(শজিমেক) এর পিসিআর ল্যাবে ২৮২নমুনায় ৫১জন, জিন এক্সপার্ট মেশিনে ১২ নমুনায় ৫, এন্টিজেন পরীক্ষায় ২৫২ নমুনায় ৬৬জন এবং টিএমএসএস মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে ৩১ নমুনায় ১৫জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এদের মধ্যে সদরের ৮৮, শেরপুরে ১২, কাহালুতে ১০, ধুনটে ৬, শাজাহানপুরে ৬, নন্দীগ্রামে ৫, আদমদীঘিতে ৪, সারিয়াকান্দি ২, শিবগঞ্জ ২, দুপচাঁচিয়া ও গাবতলীতে একজন করে। এছাড়া একই সময়ে করোনা থেকে ২২৩জন সুস্থতা লাভ করেছেন।

ডা. তুহিন আরও জানান, জেলায় এ পর্যন্ত মোট ১৮ হাজার ৯৯৪জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৬ হাজার ৮৬১জন। এছাড়া জেলায় ১ হাজার ৫৬১জন করোনায় আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button