রাজশাহী বিভাগসারাদেশ

রামেক হাসপাতালে করোনায় ১৬ জনের মৃত্যু

প্রাণঘাতী করোনা সংক্রমণ ও উপসর্গ নিয়ে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে আরও ১৬ জন মারা গেছেন।  চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার (৩ জুন) সকাল ১০টা থেকে শুক্রবার (৪ জুন) সকাল ১০টার মধ্যে তারা মারা যান।

তাদের মধ্যে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে করোনায়।  বাকি ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে উপসর্গ নিয়ে।  এবং এযাবৎ রামেক হাসপাতালে করোনায় মৃত্যুর সর্বোচ্চ রেকর্ড এটি।

গত ২৪ মে দুপুর থেকে ৩ জুন পর্যন্ত রামেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ৭৭ জনের মৃত্যু হয়েছে।  এর মধ্যে করোনায় মারা গেছেন ৪৬ জন। অন্যরা মারা গেছেন করোনার উপসর্গ নিয়ে। গত ৩০ মে সর্বোচ্চ ১২ জন মারা গেছেন রামেক হাসপাতালে।

রামেক হাসপাতালেল উপপরিচালক ডা. সাইফুল ফেরদৌস জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় রামেক হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যাকেন্দ্র (আইসিইউ) ও করোনা ইউনিটে ১৬ জন মারা গেছেন।

তাদের মধ্যে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে করোনায়। বাকি ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে উপসর্গ নিয়ে।  ৯ জনই করোনার নতুন হটস্পট চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দা।  এ ছাড়া রাজশাহীর ৬ জন ও নওগাঁর একজন মারা গেছেন।

গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালের আইসিইউতে মারা গেছেন ৫ জন।  এ ছাড়া ২৫ ও ৩ নম্বর ওয়ার্ডে তিনজন করে করে মারা গেছেন।  ২২ ও ২৯ নম্বর ওয়ার্ডে দুজন করে এবং ৩০ নম্বর ওয়ার্ডে একজন মারা গেছেন।  স্বাস্থ্যবিধি মেনে মরদেহ দাফনের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

উপপরিচালক বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় রামেক হাসপাতালে এসেছেন ৩২ জন।  এর মধ্যে ১৫ জন চাঁপাইনবাবগঞ্জ, ১৩ জন রাজশাহীর, ৩ জন পাবনার এবং নাটোরের একজন।  এ পর্যন্ত হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন ২২৫ জন। আইসিইউতে রয়েছেন ১৬ জন।

এর আগে গত ২৪ মে ১০ জন, ২৫ মে ৪ জন, ২৬ মে ৪ জন, ২৭ মে ৪ জন, ২৮ মে ৯ জন, ৩০ মে সর্বোচ্চ ১২ জন, ৩১ মে ৪ জন, ১ জুন ৭ জন, ২ জুন ৭ জন এবং ৩ জুন ৯ জন মারা গেছেন।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button