রাজশাহী বিভাগসারাদেশ

সিরাজগঞ্জ চৌহালীতে স্বামীর বিরুদ্ধে স্ত্রীর নির্যাতনের অভিযোগ

তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি: সিরাজগঞ্জের চৌহালী  উপজেলার  বন্যা গ্রামে হারুন অর রশিদ এর মেয়ে তারাভানু(২১) স্বামী সাইফুল ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে  নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে ৷     এবিষয়ে নির্যাতিত মোছাঃ তারা ভানু সিরাজগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন আদালতে  বাদী হয়ে কোটে ২০০০ সালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন সংশোধনী ২০০৩ এর ১১-গ/৩০ ধারায় একটি মামলা করেছেন।   স্বামী কর্তৃক প্রতারণা ও নির্যাতনের শিকার গৃহবধু তারা ভানুর  বিয়ে হয় পাশ্ববর্তী টাঙ্গাইলের নাগরপুর উপজেলার গয়হাটা ইউনিয়নের বনগ্রাম ( রসুলপুর) গ্রামের হাসান আলী সিকদারের ছেলে সাইফুলের সাথে।
স্বামী সাইফুল ইসলাম সিকদার(২৭), শশুর হাসান আলী সিকদার(৫২), শাশুরি রেনু বেগম(৪৫) ও ননদ রুমি আক্তার (২০) এর নির্যাতনের বিরুদ্ধে  বিজ্ঞ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ ট্র্যাইব্যূনালে ৪ জনকে আসামী করে মামলা করা হয়।  মামলার আরজি, বাদী ও তার পরিবার সূত্রে জানা গেছে,গত ৫ বছর আগে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে পরে গত ১৭/৫/১৮ ইং তারিখে ইসলামি শরা-শরীয়ত মেতাবেক রেজিঃ কাবিন নামা মূলে পাঁচ লক্ষ টাকা দেন মোহরানা ধার্যে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়। স্বামী স্ত্রীর দাম্পত্য জীবনের  ৩/৪ বছর  না যেতেই আজ শুক্রবারে স্বামী সাইফুল,শ্বশুর হাসান সিকদাসহ কয়েকজনে কোদালিয়া বাজারের পুর্ব পাশে  সুকৌশলে ফাঁকা জায়গায় নিয়ে পাকা রাস্তায় উপরে তারা ভানুকে শারীরিক ভাবে মেরে আহত করে ফেলে রেখে যায় । এর আগেও তার স্বামী তারা ভানুকে বাবার বাড়ি
থেকে যৌতুক আনতে বলে, তারা ভানু অস্বীকার করায় মানসিক ও শারীরিক ভাবে নির্যাতন করা হয় । আবারো তারা ভানুকে  যৌতুকের টাকার জন্য স্বামী, শশুর, শাশুরি ও ননদ মিলে মার-ধর করে  আহত করে ৷ খবর পেয়ে তারা ভানুর পিতা হারুন অর রশিদ মেয়েকে  উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ জেনারেল সার্জন স্লোলজিষ্ট কমিউনিটি হাসপাতালে চিকিৎসা নেন। বাদী তারা ভানু টাঙ্গাইলের সোহরাব উদ্দিন ম্যাটস এর  শিক্ষার্থী ৷ তিনি মামলা করায় আসামীরা মামলা তুলে নিতে তারা  ভানুকে হত্যার হুমকি দিচ্ছে বলেও অভিযোগ রয়েছে।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button