জাতীয়

শিশু-বয়স্কদের মসজিদে যাওয়া নিষেধ

করোনা ভাইরাসের ঊর্ধ্বগতির কারণে মসজিদে শিশু, বয়বৃদ্ধ, অসুস্থ ব্যক্তি এবং অসুস্থদের সেবায় নিয়োজিতদের জামাতে উপস্থিত না হওয়ার নির্দেশনা দিয়েছে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

মন্ত্রণালয়ের এক আদেশে জরুরি বিজ্ঞপ্তিতে মঙ্গলবার (২৮ জুন) সাত দফা নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

এতে বলা হয়, করোনা ভাইরাস প্রাদুর্ভাবজনিত কারণে সারাদেশে আক্রান্তের হার দ্রুত গতিতে বাড়ছে বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনায় স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের ২৬ জুনের ডিও পত্রে কতিপয় বিধি-নিষেধ আরোপ করে নির্দেশনা জারি করা হয়েছে। বর্তমান প্রেক্ষাপটে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় কর্তৃক সব ধর্মের ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান এবং মসজিদগুলোতে জামাতে নামাজের জন্য আবশ্যিকভাবে নিম্নবর্ণিত শর্তগুলো পালনের জন্য অনুরোধ করা হলো।

নির্দেশের মধ্যে বলা হয়েছে, মসজিদের প্রবেশদ্বারে হ্যান্ড স্যানিটাইজার বা হাত ধোয়ার ব্যবস্থাসহ সাবান-পানি রাখতে হবে এবং আগত মুসল্লিদের অবশ্যই মাস্ক পরে মসজিদে আসতে হবে।

মসজিদে আগতদের প্রত্যেককে নিজ নিজ বাসা থেকে অজু করে, সুন্নাত নামাজ ঘরে আদায় করে মসজিদে আসতে বলা হয়েছে। পাশাপাশি অজু করার সময় কমপক্ষে ২০ সেকেন্ড সাবান দিয়ে হাত ধুতেও বলা হয়েছে নির্দেশে।

মসজিদে কার্পেট বিছানো যাবে না জানিয়ে নির্দেশে বলা হয়েছে পাঁচ ওয়াক্ত নামাজের আগে সম্পূর্ণ মসজিদ জীবাণুনাশক দিয়ে পরিষ্কার করতে হবে।

মুসল্লিরা প্রত্যেকে নিজ নিজ দায়িত্বে জায়নামাজ নিয়ে যেতে হবে, কাতারে নামাজে দাঁড়ানোর ক্ষেত্রে নিরাপদ শারীরিক দূরত্ব নিশ্চিত করতে হবে, সংক্রমণ রোধকল্পে মসজিদের অজুখানায় সাবান ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার রাখতে হবে এবং মসজিদে সংরক্ষিত জায়নামাজ ও টুপি ব্যবহার করা যাবে না।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button