লিড নিউজ

নিজ বাসভবনে সাকিব সঙ্গে বৈঠকে পাপন

যুক্তরাষ্ট্র থেকে শুক্রবার রাতেই  দেশে ফিরেছেন সাকিব আল হাসান। দেশে ফেরার পর শনিবার (১৩ আগস্ট) নাজমুল হাসান পাপনের সঙ্গে তার গুলশানস্থ বাসভবনে বেলা ৩টার পর বৈঠকে বসেছেন সাকিব। জানা গেছে, এরপরই ঘোষণা করা হবে এশিয়া কাপের বাংলাদেশ দল।

বেটউইনার নিউজের সঙ্গে সাকিব আল হাসানের চুক্তির ইস্যুতে গেল কদিনে বেশ উত্তাল ছিল দেশের ক্রিকেটাঙ্গন। এই এক ইস্যুতে থমকে গিয়েছিল বাংলাদেশের এশিয়া কাপের দল ঘোষণাও। তবে বিসিবির চাপের মুখে সাকিব চুক্তি থেকে সরে আসায় সেই উত্তেজনা এখন অনেকটাই কমে গেছে। সবশেষ গেল মধ্যরাতে দেশে ফেরার পর নিজের ফেসবুক পেজ থেকে চুক্তি সংক্রান্ত পোস্টটিও সরিয়ে ফেলেছেন টাইগার অলরাউন্ডার।

আর তাই এশিয়া কাপের দল ঘোষণা করতে আর কোনো বাধা রইল না। সবকিছু ঠিক থাকলে শনিবার (১৩ আগস্ট) বিকেলের মধ্যেই এশিয়া কাপের জন্য দল ঘোষণা করতে পারে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। যদিও দল ঘোষণার চেয়েও সবার মনোযোগ কে হচ্ছেন অধিনায়ক সে দিকে।

সাকিব-পাপনের বৈঠকের ইস্যুটি গত দুইদিন ধরেই সংবাদমাধ্যমে আলোচিত খবর। তবে কখন, কোথায় হবে এই বৈঠক তা নিয়ে ছিল ধোঁয়াশা। অবশেষে জানা গেছে, আজ তিনটার পর গুলশানে বৈঠকে বসেছেন সাকিব আর পাপন। সেখানে বোর্ডের কয়েকজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাও উপস্থিত আছেন।

আজকের বৈঠকের ইস্যুটি টি-টোয়েন্টি দলের অধিনায়কত্ব নিয়ে। সাকিব পুনরায় জাতীয় দলের টি-টোয়েন্টির দায়িত্ব পাবেন নাকি মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ পাবেন আরেকটি সুযোগ- এ নিয়ে হবে আলোচনা। তবে বোর্ড সূত্রের খবর, সাকিবকেই ফের টি-টোয়েন্টির নেতৃত্ব দেওয়া হচ্ছে।

একই সঙ্গে এই বৈঠকে বোর্ডকে না জানিয়ে বেটউইনারের সঙ্গে চুক্তির কারণ দর্শাতে বলা হবে সাকিবকে। তবে তা শুধুই আনুষ্ঠানিকতার ব্যাপার হবে।

এর মধ্যে যতটুকু আভাস পাওয়া যাচ্ছে, আসন্ন এশিয়া কাপে দলের নেতৃত্ব পেতে যাচ্ছেন বেটিং প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তিতে জড়ানো সাকিব আল হাসানই। সেই সঙ্গে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের নেতৃত্বও পেতে পারেন। যদিও এতদিন ধরে অধিনায়ক হওয়ার তালিকায় প্রথম পছন্দই ছিলেন সাকিব। কিন্তু তার বিতর্কিত চুক্তিটির কারণে সেই সম্ভাবনায় উঁকি দেয় মাহমুদউল্লাহ নাম। কারণ পছন্দের তালিকায় থাকা লিটন দাস ও নুরুল হাসান হোসান চোটের কারণে দলেই থাকতে পারছেন না। তাই ভাবা হয়েছিল, সাকিব না হলে এশিয়া কাপে মাহমুদউল্লাহই হতে পারেন অধিনায়ক।

কিন্তু সেই সম্ভাবনাও এখন প্রায় উড়ে গেছে। কারণ সাকিব তার বিতর্কিত চুক্তিটি বাতিল করেছেন। ফলে স্বাভাবিকভাবেই এশিয়া কাপের দলে থাকছেন তিনি। তাই নেতা হিসেবেও ঘুরে ফিরে এখন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারের নামই আসছে।

এদিকে, অধিনায়কত্ব ইস্যু ছাড়াও এশিয়া কাপের দল নিয়েও ভাবতে হচ্ছে বিসিবিকে। কারণ ইনজুরির মিছিলে প্রথম সারির অনেক খেলোয়াড়কেই পাচ্ছে না বোর্ড।  ইনজুরির কারণে লিটন দাস, নুরুল হাসান সোহানের সঙ্গে এশিয়া কাপে জায়গা হচ্ছে না ইয়াসির আলি রাব্বিরও। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে আঙুলের ইনজুরিতে মাঠ থেকে ছিটকে যান সোহান। হ্যামস্ট্রিংয়ের ইনজুরিতে পড়া লিটন দাসও মাঠের বাইরে গিয়েছেন চার সপ্তাহের জন্য। আর ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজে ইনজুরিতে পড়া ইয়াসির রাব্বিরও জায়গা হচ্ছে না এশিয়া কাপে।

আরো দেখুন

সম্পর্কিত প্রবন্ধ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button